শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ১১ ফাল্গুন ১৪২৪ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
জুটি বাঁধছেন শাকিব-শ্রাবন্তী!  » «   দু’সপ্তাহের মধ্যে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন শুরু  » «   অল্পের জন্য বেঁচে গেলেন প্রতিমন্ত্রী  » «   লামায় অবৈধভাবে প্রবেশকালে ১৪ রোহিঙ্গা আটক  » «   দুর্ঘটনায় নিহত ছাত্রদল নেতার দাফন সম্পন্ন  » «   ফেসবুকের কবলে ‘নিঃস্ব’ যুবলীগ নেতা  » «   বাস খাদে পড়ে নিহত ৩, আহত ২০  » «   প্রেসক্লাবে খাদ্যমন্ত্রী ‘খালেদার দীর্ঘ কারাবাস চায় বিএনপির নেতৃবৃন্দ’  » «   কম সাজায় জামিন আছে তবে…  » «   সীতাকুণ্ডে শিপ ইয়ার্ডে আগুনে নিহত ১  » «   জাতীয় নির্বাচনে ‌বিএনপির অংশগ্রহণ করতে হবে  » «   খালেদার অর্থদণ্ড স্থগিত, নথি তলব  » «   মাশরাফির মেয়ে কোরআনের ছাত্রী!  » «   কুপ্রস্তাব প্রত্যাখ্যান, নারীর ফ্ল্যাটে সচিবের কাণ্ড  » «   যেভাবে ব্যবসায়ী-শিল্পপতিদের ফাঁদে ফেলতো সুন্দরী জেরিন  » «  

কলেজছাত্রীকে কৌশলে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ!



নিউজ ডেস্ক::বর্তমানে ধর্ষণের মতো এই নেক্কার জনক ঘটনা সমাজে এতোটাই বেড়ে গিয়েছে যা কোনো ভাবেই দমন করা সম্ভব হচ্ছে না। প্রতিনিয়তই ঘটছে এই এরকম ঘটনা।

সম্প্রতি যশোরের চৌগাছায় একজন কলেজছাত্রী (২০) ধর্ষণের শিকার হয়েছেন। ধর্ষণের শিকার ওই কলেজছাত্রীকে গুরুতর মারাত্মক অবস্থায় যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে জানা গেছে।

ধর্ষিতা ওই কলেজছাত্রী চৌগাছা ডিগ্রি কলেজে দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী। শুক্রবার (৯ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে চৌগাছা উপজেলার মাধবপুর গ্রামের একটি বাড়িতে ওই ছাত্রীর কথিত প্রেমিক তাকে ধর্ষণ করে বলে অভিযোগ করা হয়।

এ ঘটনার পর মেয়েটির মা বলেন, ‘এক সহপাঠীর সাথে তার সম্পর্ক ছিল। তার নাম বাপ্পি। শুক্রবার (৯ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে তার মেয়েকে বেড়ানোর নাম করে কৌশলে বাপ্পি তার ফুপুরবাড়ি মাধবপুর গ্রামে নিয়ে যায়। সেখানে তাকে ধর্ষণ করে বাপ্পি। এর ফলে প্রচণ্ড রক্তক্ষরণ হয়ে মেয়েটি অসুস্থ হয়ে পড়ে।’

এ রকম ঘটনা তার সঙ্গে ঘটেছে আঁচ করতে পেরে তাকে উদ্ধার করে চৌগাছা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করি। কিন্তু তার অবস্থা গুরুতর হওয়ায় ডাক্তার তাকে যশোর জেনারেল হাসপাতালে রেফার করে। সাথে সাথে তাকে যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তার অবস্থা গুরুতর বলে চিকিৎসকরা জানিয়েছেন।

এদিকে, হাসপাতালের ভারপ্রাপ্ত তত্ত্বাবধায়ক ডাক্তার আব্দুর রহিম মোড়ল জানান, রোগীর গোপনাঙ্গে ক্ষতচিহ্ন রয়েছে। সেখান থেকে প্রচুর পরিমাণ রক্তক্ষরণও হয়েছে। গাইনি ডাক্তাররা বিভিন্ন আলামত সংগ্রহ করেছেন। মেডিকেল রিপোর্ট আসার পর বলা যাবে তাকে ধর্ষণ করা হয়েছে কিনা সে ব্যাপারে বিস্তারিত বলা যাবে। এর আগে, কিছু বলা যাচ্ছে না।

এ বিষয়ে চৌগাছা থানার ওসি খন্দকার শামিম উদ্দিন জানান, ‘এ রকম ঘটনা আমার জানা নেই। এ ব্যাপারে এখনো কেউ থানায় অভিযোগ করেননি। তবে এ রকম অভিযোগ পেলে অবশ্যই আইনগত ব্যবস্থা নেব।’

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: