মঙ্গলবার, ২৬ মার্চ ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ১২ চৈত্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
বিরোধী দলীয় উপনেতা হলেন রওশন এরশাদ  » «   সিলেট যাত্রীদের দাবি মেনে নেওয়ার আশ্বাস বিমানের  » «   ১ এপ্রিল থেকে সব কোচিং সেন্টার বন্ধ  » «   সুবর্ণচরে গণধর্ষণ: আইনজীবীর বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার আবেদন  » «   ‘১১ বছর বয়সে বাবা আমাকে নিষিদ্ধপল্লীতে বিক্রি করে দেন’  » «   আকস্মিক ঢাকার কূটনৈতিক পাড়ায় ২৪ ঘন্টার রেড অ্যালার্ট জারি  » «   নির্বাচনে রাশিয়া-ট্রাম্প আঁতাতের প্রমাণ মেলেনি মুলারের তদন্তে  » «   ১২ ব্যক্তি ও এক প্রতিষ্ঠানকে স্বাধীনতা পদক দিলেন প্রধানমন্ত্রী  » «   এবার ক্যালিফোর্নিয়ায় মসজিদে আগুন, চিরকুট উদ্ধার  » «   ফাঁকা বাসে ভয়ঙ্কর ফাঁদ, টার্গেট কম বয়সী নারী যাত্রী  » «   রিমান্ডে বিমানবালা: যেভাবে হয় সৌদি আরব থেকে স্বর্ণ আনার চুক্তি  » «   আজ ভয়াল ২৫ মার্চ, গণহত্যার স্বীকৃতি চায় বাংলাদেশ  » «   সিলেটের আতিয়া মহলে অভিযান: দুই বছরেও আসেনি চার্জশিট  » «   বাড়ছে দূতাবাস, গুরুত্ব পাচ্ছে অর্থনৈতিক কূটনীতি  » «   একাত্তরের গণহত্যা আন্তর্জাতিক ফোরামগুলোতে তুলবে জাতিসংঘ  » «  

কলাপাড়ায় ছেলের ভয়ে বিধবা মা গৃহছাড়া, অতঃপর ছেলের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের



সাইফুল ইসলাম (নুর), কলাপাড়া প্রতিনিধিঃবিধবা রোকেয়া বেগম এখন দিশেহারা। গর্ভে ধারণ করা বড় ছেলে হাবিব মোল্লাকে নিজ নামের জমি লিখে না দেয়ায় মারধর করেছে। হুমকি দিয়েছে খুন জখমের। এখন ভিটে ছাড়া করার হুমকি দেয়া হয়েছে। ভিটে ছাড়া করতে ছেলের হুমকিতে এই মা হতবাক বনে গেছেন। যেমন ছেলে তেমনি আবার মেয়ে জামাই সিদ্দিক মোল্লা। দু’জনেই এখন রোকেয়াবেগমের দশ শতক জমি লিখে নেয়ার জন্য বেপরোয়া হয়ে লেগেছে। কোন উপায় না পেয়ে ছেলে হাবিব মোল্লা এবং মেয়ে জামাই সিদ্দিক মোল্লার নামে কলাপাড়া সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেটের আদালতে রোকেয়া বেগম মামলা করেছেন। কলাপাড়া উপজেলার ধানখালী ইউনিয়নের লোন্দা গ্রামে বসবাস রোকেয়া বেগমের। স্বামী আবুল কাশেম মোল্লা মারা গেছেন। তিন ছেলে ও চার মেয়ে রয়েছে তার। নিজের কেনা সাড়ে ৩৮ শতক জমিতে বসতবাড়ি তার। আর স্বামীর ওয়ারিশপ্রাপ্ত দশ শতক জমিও রয়েছে। ওই খানে বসবাস করছেন। সন্তানরা ইচ্ছা জাগলে খোঁজ-খবর নেয়, নইলে নিজের মতো করে থাকছেন বলে জানান। কিন্তু বড় ছেলে খোঁজ-খবর নেয়া তো দূরের কথা!উল্টো দশ শতক জমি দলিল করে দেয়ার জন্য তাকে চাপ দিয়ে আসছিল। রোকেয়া বেগম সাফ জানিয়ে দেন, তার মৃত্যুর পরে অংশ হারে যা পাবে তা পাবে। কোন সন্তানকে ঠকাতে পারবেন না।এতে ক্ষীপ্ত হয়ে ৮ জুন দুপুরে মায়ের ওপর হামলা চালায় হাবিব মোল্লা। আদালতে ১১ জুন দায়ের করা মামলায় তিনি উল্লেখ করেছেন,জমি দিতে পারবেন না বলায় তাকে কিল, ঘুষি মারা হয়। গলা ধাক্কা দিয়ে মাটিতে ফেলে দেয়া হয়। এমনকি জমি না পেলে খুন করার এবং বসতভিটে ছাড়া করার হুমকি দেয়া হয়েছে।বিজ্ঞ আদালত হাবিবের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানার আদেশ দিয়েছে। রোকেয়া বেগম জানান, তিনি এখন তার ছেলের কারনে নিরাপত্তাহীন রয়েছেন। এমনকি হাবিব মোল্লা তার ছোট ভাইদেরকেও কয়েক দফা মারধর করেছে। এঘটনায় কলাপাড়া থানায় একাধিক জিডি করা হয়েছে। ছোট ভাই সবুজ মোল্লার অভিযোগ, তার ভাই ইয়াবা সেবনকারী, সন্ত্রাসী। তার বিরুদ্ধে অসংখ্য অভিযোগ করার পরও তাকে পুলিশ আটক করছে না। এখনহাবিব মোল্লার কারনে তার মা’সহ পরিবারের অন্যান্যরা শঙ্কিত রয়েছেন। কলাপাড়া থানার ওসি জিএম শাহনেওয়াজ জানান, হাবিব মোল্লাকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: