রবিবার, ২০ মে ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
রাজকীয় বিয়েতে রাজকীয় সাজে ছিলেন প্রিয়াঙ্কাও  » «   যে কারণে বাদ ইমরুল-তাসকিন-সোহান  » «   সাইবার অপরাধ : তাৎক্ষণিক বিচার চান অধিকাংশ ভুক্তভোগী  » «   নয়াপল্টনে রিজভী‘কাদেরের বক্তব্য একতরফা নির্বাচনেরই ইঙ্গিতবহ’  » «   রাজীবের হাত বিচ্ছিন্ন : দুই বাসচালকের জামিন নামঞ্জুর  » «   এভারেস্টের চূড়ায় ১৬ বছরের কিশোরী!  » «   ৫ মাদকসেবীর কারাদণ্ড  » «   মির্জাপুরে ‌‌‘বন্দুকযুদ্ধে’ ছিনতাইকারী নিহত  » «   রেলের টিকিট কালো বাজারে, জেল জরিমানা  » «   চাঞ্চল্যকর সীমা হত্যার আসামি গ্রেফতার  » «   বড়লেখায় সোনাই নদীতে ধরা পড়ল ৪ ফুট লম্বা রাঘব চিতল  » «   ‘বন্দুকযুদ্ধে’ গালকাটা বাবু নিহত  » «   মৌলভীবাজারে শাশুড়িকে কুপিয়ে খুন করেছে জামাতা  » «   আজান সম্প্রচার না করলে লাইসেন্স বাতিলের হুঁশিয়ারি  » «   বিরল রোগে আক্রান্তমুক্তামণির গল্পটা হয়তো শেষের দিকে!  » «  

কম্বোডিয়ায় প্রধানমন্ত্রী রোহিঙ্গা সংকট: নমপেনকে পাশে চায় ঢাকা



নিউজ ডেস্ক::রোহিঙ্গা ইস্যুতে কম্বোডিয়াকে পাশে চায় ঢাকা। মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ করা রোহিঙ্গাদের দেশটিতে ফেরত পাঠাতে এই সংকটের টেকসই সমাধানে বিশ্বের অন্যান দেশের মত কম্বোডিয়াকেও পাশে চায় বাংলাদেশ।

সোমবার (৪ ডিসেম্বর) কম্বোডিয়ার রাজধানী নমপেনে দুই দেশের মধ্যে অনুষ্ঠিত দ্বিপক্ষীয় বৈঠকের পর কম্বোডিয়ার প্রধানমন্ত্রী হুন সেনের সঙ্গে এক যৌথ বিবৃতিতে শেখ হাসিনা এসব কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমরা এই সমস্যার শান্তিপূর্ণ সমাধান চাই, যে কারণে বিশ্বের সকল দেশের সমর্থন আমাদের জন্য খুব প্রয়োজন। কম্বোডিয়ার প্রধানমন্ত্রী হুন সেনের কাছেও আমি সহযোগিতা চেয়েছি। অপরদিকে দেশটির প্রধানমন্ত্রীও বাংলাদেশের পাশে থাকার আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

প্রসঙ্গত, বাংলাদেশ-কম্বোডিয়ার মধ্যে ১টি চুক্তি ও ৯টি সমঝোতা চুক্তি স্মারক সই হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও কম্বোডিয়ার প্রধানমন্ত্রী হুন সেনের উপস্থিতিতে দুই দেশের প্রতিনিধিরা এসব চুক্তি ও সমঝোতা স্মারকে সই করেন। দুদেশের মধ্যকার এই চুক্তি দেশ দু’টির বাণিজ্য সম্প্রসারণে ভূমিকা রাখবে বলে আশা করেন দুই দেশের কর্তা ব্যক্তিরা।
রোহিঙ্গা ইস্যুতে কম্বোডিয়াকে পাশে চায় ঢাকা। মিয়ানমার থেকে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ করা রোহিঙ্গাদের দেশটিতে ফেরত পাঠাতে এই সংকটের টেকসই সমাধানে বিশ্বের অন্যান দেশের মত কম্বোডিয়াকেও পাশে চায় বাংলাদেশ।

সোমবার (৪ ডিসেম্বর) কম্বোডিয়ার রাজধানী নমপেনে দুই দেশের মধ্যে অনুষ্ঠিত দ্বিপক্ষীয় বৈঠকের পর কম্বোডিয়ার প্রধানমন্ত্রী হুন সেনের সঙ্গে এক যৌথ বিবৃতিতে শেখ হাসিনা এসব কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমরা এই সমস্যার শান্তিপূর্ণ সমাধান চাই, যে কারণে বিশ্বের সকল দেশের সমর্থন আমাদের জন্য খুব প্রয়োজন। কম্বোডিয়ার প্রধানমন্ত্রী হুন সেনের কাছেও আমি সহযোগিতা চেয়েছি। অপরদিকে দেশটির প্রধানমন্ত্রীও বাংলাদেশের পাশে থাকার আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

প্রসঙ্গত, বাংলাদেশ-কম্বোডিয়ার মধ্যে ১টি চুক্তি ও ৯টি সমঝোতা চুক্তি স্মারক সই হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও কম্বোডিয়ার প্রধানমন্ত্রী হুন সেনের উপস্থিতিতে দুই দেশের প্রতিনিধিরা এসব চুক্তি ও সমঝোতা স্মারকে সই করেন। দুদেশের মধ্যকার এই চুক্তি দেশ দু’টির বাণিজ্য সম্প্রসারণে ভূমিকা রাখবে বলে আশা করেন দুই দেশের কর্তা ব্যক্তিরা।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: