শনিবার, ১৯ জানুয়ারী ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৬ মাঘ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
সৌদি নারীদের বিয়ে করতে পারবে বাংলাদেশিরা, মিলবে ভাতা  » «   এমপি কয়েসের হাত ধরে বিএনপির হাবিব এখন আওয়ামী লীগে  » «   জিয়াউর রহমানের ৮৩তম জন্মবার্ষিকী আজ  » «   রোহিঙ্গাদের দেখতে আজ বাংলাদেশে আসছেন জাতিসংঘের দূত  » «   ‘দম বন্ধ হয়ে আসছে, আমাকে ছেড়ে দিন’  » «   দুই যুগে কতটা সফল ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলা?  » «   কলম্বিয়ায় পুলিশ একাডেমিতে গাড়িবোমা বিস্ফোরণ, নিহত ১০  » «   সোহরাওয়ার্দীতে আজ আওয়ামী লীগের বিজয় সমাবেশ  » «   জিয়াউর রহমানের জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে কর্মসূচি ঘোষণা  » «   সীমান্তের খালে মিয়ানমারের সেতু, বন্যার আশঙ্কা বাংলাদেশে  » «   দ্বিতীয় কৃত্রিম উপগ্রহ পাঠাবে বাংলাদেশ: শাবিতে পরিকল্পনামন্ত্রী  » «   আতিয়া মহল মামলা: ৫ দিনের রিমান্ডে ৩ আসামি  » «   শেখ হাসিনা হত্যাচেষ্টা মামলা: হাইকোর্টে আপিল শুনানি শুরু  » «   টিআইবির রিপোর্টে সরকার ও ইসির আঁতে ঘা লেগেছে: বিএনপি  » «   মাফিয়াদের স্বর্গরাজ্যে দশ বাংলাদেশির অনন্য সাহসিকতার নজির  » «  

একাদশ শ্রেণিতে ভর্তি নীতিমালা চ্যালেঞ্জ করে রিট



নিউজ ডেস্ক::দেশের বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির নীতিমালা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্ট একটি রিট আবেদন করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১৭ মে) সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী অ্যাডভোকেট ইউনুছ আলী আকন্দ জনস্বার্থে এ রিট আবেদনটি দায়ের করেন।

বিচারপতি মঈমুল ইসলাম চৌধুরী ও বিচারপতি আশরাফুল কামালের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চে এ মামলাটি দাখিল করা হয়েছে। আগামী রোববার এ রিটের ওপর শুনানী হতে পারে।

রিট দায়েরর পর তিনি বলেন, ২০১৮ সালের একাদশ শ্রেণিতে ভর্তি নীতিমালা ২০১৮ সংবিধানের ৭, ১৫, ১৯, ২৬ ও ৩১ ও ৪০ অনুচ্ছেদে এবং ১৯৬১ সালের মাধ্যমিক শিক্ষা অর্ডিনেন্স(অধ্যাদেশ) সঙ্গে সাংঘর্ষিক।

২০০৯ সালের বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের রেগুলেশন ৪২ এবং জাতীয় শিক্ষানীতি ২০১০ এর শিক্ষার্থী ভর্তির সহিত কেন সাংঘর্ষিক ঘোষণা করা হবে না তা জানতে চেয়ে রুল জারির আবেদনও জানিয়েছেন আইনজীবী।

এই আইনজীবী আরও বলেন, আইন অনুযায়ী একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির ক্ষমতা শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রধানের। কিন্তু সরকার উপরোক্ত আইন লংঘন করে ভর্তি নীতিমালা প্রনয়ণ করে যা উক্ত আইনের সংগে সাংঘর্ষিক।

ইউনুছ আও বলেন, প্রতি বছর একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির ক্ষেত্রে নটরডেম, হলিক্রস হাইকোর্ট থেকে আদেশ নিয়ে নিজেদের মতো করে শিক্ষার্থীদের ভর্তি করায়।

অন্যদিকে সারা দেশের সকল কলেজগুলোতে সরকারি নীতিমালা অনুযায়ী ভর্তি করানো হয়। যা সংবিধানের সঙ্গে পুরোপুরি সাংঘর্ষিক বলেও মন্তব্য করেন এই আইনজীবী। নীতিমালা করার কারণে একজন শিক্ষার্থী তার পছন্দমত কোনো শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হতে পারছে না। রিট আবেদনে বিবাদী করা হয়েছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সচিব, ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যানকে।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: