মঙ্গলবার, ২১ মে ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
রাজমিস্ত্রি সেজে খুনি ধরলেন এসআই লালবুর রহমান!  » «   আগামী ৫ জুন পবিত্র ঈদুল ফিতর!  » «   বাংলাদেশের সঙ্গে ঝামেলা করতে চাচ্ছে পাকিস্তান: পররাষ্ট্রমন্ত্রী  » «   লুটপাটের উন্নয়নের কথা শুনতে শুনতে জনগণ অতিষ্ঠ: রিজভী  » «   শ্লীলতাহানির বিচার না পেয়ে কিশোরীর আত্মহত্যা, ওসি প্রত্যাহার  » «   ৩৪ পয়েন্টে ওয়াসার পানি পরীক্ষার নির্দেশ  » «   যেভাবে গণনা হবে ভারতে লোকসভা নির্বাচনের ভোট  » «   ঋণখেলাপিদের গণসুবিধার নীতিমালায় স্থিতি অবস্থার আদেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট  » «   স্বামী- স্ত্রী পরিচয়ে পতিতাবৃত্তি, সাংবাদিক পরিচয়ে ব্লাকমেইল!  » «   পাকিস্তানের নাগরিকদের ভিসা বন্ধ করল বাংলাদেশ  » «   সৌদি আরবের মক্কা ও জেদ্দা নগরীতে হুতিদের মিসাইল হামলা  » «   সারাদেশের পাস্তুরিত দুধ পরীক্ষার নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট  » «   আত্মহত্যাচেষ্টার আগে শোভন-রাব্বানীর উদ্দেশে ফেসবুকে যা লিখলেন দিয়া  » «   এক সময়ের কোটিপতি এখন ভাঙারি দোকানের শ্রমিক!  » «   বগুড়া-৬ আসনে বিএনপির মনোনয়ন দৌঁড়ে এগিয়ে সিরাজ  » «  

ইনোসেন্স অব মুসলিমসের জেরে মিসরে ইউটিউব বন্ধের নির্দেশ



তথ্যপ্রযুক্তি ডেস্ক:: ভিডিও শেয়ারিং ওয়েবসাইট ইউটিউব মিসরে এক মাসের জন্য বন্ধের নির্দেশ দিয়েছেন দেশটির শীর্ষ একটি প্রশাসনিক আদালত। মহানবী হযরত মুহাম্মদকে (স.) অসম্মান করে নির্মিত স্বল্পদৈর্ঘ্য একটি চলচ্চিত্র ইউটিউবে রাখার ঘটনায় করা মামলায় কয়েক বছর ধরে চলমান আপিল প্রক্রিয়া শেষে শনিবার এ নির্দেশ এলো। মিসরের বিচার বিভাগীয় কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে গালফ নিউজ এ তথ্য জানিয়েছে।

মহানবীকে অসম্মান করে নির্মিত ‘ইনোসেন্স অব মুসলিম’ চলচ্চিত্রটি ইউটিউব থেকে মুছে না ফেলায় ২০১৩ সালে ইউটিউব ব্লক করে দেয়ার নির্দেশ দেন মিসরের নিম্ন আদালত। পরে আদালতের এ রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করে মিসরের জাতীয় টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রক কর্তৃপক্ষ। এরপর থেকে এত দিন আপিলের বিষয়টি চলমান ছিল।

ইনোসেন্স অব মুসলিম ইউটিউবে প্রচারের পর মধ্যপ্রাচ্যে বিক্ষোভের দাবানল ছড়িয়ে পড়ে। যুক্তরাষ্ট্রবিরোধী এ বিক্ষোভ কর্মসূচিতে ৩০ জনেরও বেশি লোকের প্রাণহানি ঘটে।

পরে যুক্তরাষ্ট্র বলে এটি নির্মাণে সরকারি কোনো সহযোগিতা করা হয়নি এবং বিদ্যমান বাকস্বাধীনতার আইনের কারণে এ ধরনের ভিডিও নির্মাণ বন্ধ করা যাবে না।

ইউটিউব বন্ধের বিষয়ে আপিলে মিসরের আদালত শনিবার যে রায় দিয়েছেন তা চূড়ান্ত। এ রায়ের বিরুদ্ধে আর আপিল করা যাবে না। তবে আদালত ইউটিউব বন্ধের বিষয়ে রায় দিলেও শনিবার বিকেল পর্যন্ত কায়রোতে ইউটিউব সচল দেখা গেছে।

সূত্র: গালফ নিউজ।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: