মঙ্গলবার, ২৩ এপ্রিল ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ১০ বৈশাখ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
শ্রীমঙ্গলে থামছে না অসাধু ব্যবসায়ীদের অবৈধভাবে বালু উত্তোলন, নিশ্চুপ প্রশাসন!  » «   জাজিরা প্রান্তে বসল ১১তম স্প্যান, দৃশ্যমান ১৬৫০ মিটার  » «   দক্ষিণ সুরমায় ইজতেমার অনুমোদন এখনো মেলেনি  » «   সিলেটের ৯টি উপজেলায় ভোটার তালিকা হালনাগাদ শুরু  » «   শোকে স্তব্ধ শ্রীলঙ্কায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৩১১  » «   জিন তাড়ানোর বাহানায় যৌন সম্পর্ক গড়তো সেই পিয়ার  » «   ভারতের মিডিয়া ও বিজেপির প্রতি ক্ষুব্ধ শ্রীলঙ্কার নেটিজেনরা  » «   পড়াশোনা না করলে জীবনের অর্থ সংকীর্ণ হয়ে ওঠে: শিক্ষামন্ত্রী  » «   এমডিকে ‘ওয়াসার সুপেয় পানির’ শরবত খাওয়াবেন জুরাইনবাসী  » «   হুমকি না থাকলেও সতর্ক আছে বাংলাদেশ : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী  » «   নকল তামাক পণ্য : হুমকিতে জনস্বাস্থ্য, রাজস্ব হারাচ্ছে সরকার  » «   ৬ দিনের সফরে সিলেটে পৌঁছেছেন সাবেক শিক্ষামন্ত্রী নাহিদ  » «   শাহজালাল বিমানবন্দরের টয়লেট থেকে ৪ কেজি স্বর্ণ উদ্ধার  » «   ফেঞ্চুগঞ্জে ঘরে ঢুকে হত্যাচেষ্টা, ছুরিসহ আটক  » «   শ্রীলংকায় বোমা হামলায় সুনামগঞ্জের শিশু জায়ান নিহত  » «  

ইতালিতে ফেসবুকে পরিচয় অতঃপর বিয়ে



প্রবাস ডেস্ক:: সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছেলে-মেয়েদের বন্ধুত্ব হওয়াটা স্বাভাবিক। এ বন্ধুত্ব থেকে অনেকেই আবার বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। এরকমই একটি ঘটনার জন্ম দিয়েছেন ইতালি প্রবাসী দুই বাংলাদেশি সুহেদ-রাসেদা।

দীর্ঘ তিন বছর বন্ধুত্বের পর গত ২৪ ডিসেম্বর ভেনিসের একটি অভিজাত রেষ্টুরেন্টে জীবনসঙ্গী হিসেবে আবদ্ধ হয়েছেন সুহেব আহমেদ ও রাসেদা।

সুহেব মিলানে বাস করেন; বাড়ি সিলেটের জালালাবাদ উপজেলার মোগলগাঁও ইউনিয়নে। বাবা সামসুদ্দোহা ও মা সুফিয়া বেগম।
অপরদিকে রাসেদা আহমেদ বসবাস করেন ভেনিস শহরে। বাড়ি শরিয়তপুরের নড়িয়া ইউনিয়নে। পিতা সোরাফ হাওলাদার।

বিয়ের ব্যাপারে রাসেদার বড় ভাই ইসমাইল হোসেন স্বপন জানান দীর্ঘদিন আগে একে অপরের সঙ্গে ফেসবুকের মাধ্যমে প্রথমে বন্ধুত্ব ও পরে ভালোবাসার সম্পর্ক গড়ে ওঠে। পরে ব্যাপারটি জানাজানি হলে উভয় পারিবারের মতামতে বিয়ের সিদ্ধন্ত চূড়ান্ত হয়। এরপর ২৪ ডিসেম্বর আনুষ্ঠানিকভাবে তাদের বিয়ে সম্পন্ন হয়।
বিয়ের ব্যাপারে সুহেদ বলেন, আমি খুবই সুখী ভালোবাসার মানুষটিকে জীবনসঙ্গী হিসেবে পেয়ে। তিনি আরও বলেন মন থেকে ভালোবাসলে তা কখনও বিফলে যায় না।

কনে রাসেদা বলেন, পৃথিবীতে আমার মত আর কেউ সুখী নেই। যাকে ভালোবেসেছি তাকে বিয়ে করেছি। আমরা সংসার জীবনে সুখী হতে সবার কাছে দোয়া চাই।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: