বুধবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ২ কার্তিক ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
পূজায় বিজিবিকে মিষ্টি পাঠিয়েছে বিএসএফ  » «   উদ্বেগজনক হারে বাড়ছে ‘ট্রেনে কাটা’ পড়ে মৃত্যু  » «   আত্মসমর্পণের আহ্বানে সাড়া দিচ্ছে না জঙ্গিরা  » «   শিশু জয়নাব ধর্ষণ-হত্যা : ইমরানের ফাঁসি কার্যকর  » «   ‘বেত ও বেলুন দিয়ে মারে,পরে নখে সুই ঢুকিয়ে মাথার চুল কেটে দেয়’  » «   বউকে বৃষ্টিতে ফেলে ছাতা মাথায় ট্রাম্প!  » «   ঋণের পরিবর্তে শারীরিক সম্পর্কের প্রস্তাব ব্যাংক ম্যানেজারের,অতঃপর..  » «   খাশোগি নিখোঁজ, বেনিফিট অব ডাউটের সুবিধা পাচ্ছে সৌদি  » «   নিরাপদ খাদ্যে আমরা অনেক পিছিয়ে আছি: ক্যাব সভাপতি  » «   শাবিপ্রবি’র ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ  » «   আত্মসমর্পণ না করলে ‘নিলুফা ভিলায়’ অভিযান আজ  » «   রিয়াদ পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী  » «   খাশোগি হত্যা বনাম সৌদি যুবরাজের কালো অধ্যায়  » «   অপারেশন ‘গর্ডিয়ান নট’ সমাপ্ত, দুই জঙ্গির মরদেহ উদ্ধার  » «   ২০ দলীয় জোট থেকে বেরিয়ে গেল ন্যাপ ও এনডিপি  » «  

ইতালিতে পাস হওয়া বর্ণবাদী আইন বাতিলের দাবিতে প্রতিবাদ সমাবেশ



নিউজ ডেস্ক:: ইতালির রোমে অভিবাসীদের অধিকার আদায়ের লক্ষ্যে সম্প্রতি পাস হওয়া বর্ণবাদী আইন বাতিলের দাবিতে প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।৭ অক্টোবর বিকাল ৪টায় এসকুইলিনো চত্বরে ধূমকেতু সামাজিক সংগঠনের সার্বিক সহযোগিতায় ও ইতালি বাংলাদেশ সমিতির আয়োজনে এ প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

বর্তমান ইতালি সরকারের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সালবিনী বর্ণবাদী আইন অভিবাসীদের ভাবিয়ে তুলেছে।সালবিনীর বর্নবাদী আইন ইতিমধ্যে মন্ত্রিপরিষদে অনুমোদন পেয়ে রাষ্ট্রপতির স্বাক্ষর সম্পন্ন হয়ে কার্যকর হয়েছে।পাস হওয়া আইন বাতিলের দাবিতে ইতালিতে বিভিন্ন দেশের সংগঠন প্রতিবাদসভা ও সমাবেশ করে যাচ্ছে।

বক্তারা বলেন,যারা ইতিমধ্যে নাগরিকত্ব পেয়ে ইতালিয়ান হয়েছেন,তাদের ও অরিজিন ইতালিয়ানদের সঙ্গে আইন করে বৈষম্য সৃষ্টি করা হবে,যা মেনে নেয়া যায় না।বসতবাড়ির নিচে কোনো সামাজিক সংগঠন থাকতে পারবে না।এটি ধর্মীয় কার্যক্রম বন্ধ করার পাঁয়তারা করা হচ্ছে।

সবার অধিকার আদায় ও বর্ণবাদী আইন বাতিলের জন্য সাবেক বাংলাদেশ সমিতির সভাপতি ও ধূমকেতুর কর্ণধার নূরে আলম সিদ্দিকী বাচ্চু সবার পক্ষ থেকে কিছু দাবি তুলে ধরেন।এর মধ্যে সবার জন্য স্টে পারমিট, দীর্ঘমেয়াদি স্টে পারমিট ৫ বছর পর নবায়ন পদ্ধতি বাতিলকরণ,মা ও বাবার সঙ্গে শিশুদের দীর্ঘমেয়াদি স্টে পারমিট দিতে হবে,মানবিক স্টে পারমিট চালু রাখতে হবে,নবায়নে পুলিশ অনুমতি মানতে হবে,নাগরিকত্ব পাওয়ার জন্য ১০ রেসিডেন্স বাতিল করাসহ অন্যান্য দাবি তুলে ধরা হয়।

দাবি মানা না হলে আগামী ১৩ অক্টোবর আবারও ইতালিতে বসবাসকারী সব বিদেশিকে এসকুইলিনো চত্বরে আসার আহ্বান জানানো হয়।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: