বুধবার, ১৩ নভেম্বর ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ২৯ কার্তিক ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
বান্দরকে লাই দিলে গাছের মাথায় ওঠে : রাঙ্গাকে ফিরোজ রশীদ  » «   আবরার হত্যায় ২৫ জনকে আসামি করে চার্জশিট জমা  » «   ২০২১ সালের মধ্যে দেশের সব ঘরে বিদ্যুৎ: প্রধানমন্ত্রী  » «   সরকারবিরোধী হলে ৩০ ডিসেম্বরের পরই রাস্তায় নামতাম : ভিপি নুর  » «   আজ ৭ বিদ্যুৎকেন্দ্র উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী  » «   সিধুকে নিয়ে করা ইমরান খানের মন্তব্য ভাইরাল  » «   পায়ের ওপর দিয়ে বাস, মৃত্যুর কাছে হার মানলেন সেই নারী  » «   পুরোনো বগিতে অতিরিক্ত যাত্রী নিয়ে চলছিল উদয়ন  » «   ট্রেন দুর্ঘটনা: লাশ হয়ে বাড়ি ফিরছেন চাঁদপুরের দম্পতি  » «   ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহত ১০ জনের পরিচয় মিলেছে  » «   মুক্তিযোদ্ধা কোটায় চাকরিতে প্রতারণা: রাজস্ব কর্মকর্তার ৭ বছরের জেল  » «   সিগন্যাল অমান্য করায় তূর্ণা এক্সপ্রেসের চালক-গার্ডসহ ৩ জন বরখাস্ত  » «   ট্রেন দুর্ঘটনায় ১ লাখ টাকা করে পাবে নিহতদের প্রতি পরিবার  » «   তূর্ণার চালক সিগনাল অমান্য করায় এই ভয়াবহ দুর্ঘটনা?  » «   ট্রেন দুর্ঘটনা: হবিগঞ্জ জেলা ছাত্রদলের সহ-সভাপতি নিহত  » «  

ইতালিতে অবৈধ অনুপ্রবেশ : ২০ হাজার বাংলাদেশির ভাগ্য অনিশ্চিত



প্রবাস ডেস্ক::ইতালিতে নতুন সরকার ক্ষমতায় আসার পর অবৈধ অনুপ্রবেশ ঠেকাতে কঠোর পদক্ষেপ নিয়েছে। গত কয়েক দিনে দুই হাজারেরও বেশি অভিবাসী ইতালিতে প্রবেশ করতে গিয়ে ফিরে যেতে বাধ্য হয়েছে। তাদের বেশিরভাগই সাগরপথে দেশটিতে প্রবেশ করতে গিয়েছিলেন। ভূমধ্যসাগরের বিশাল নৌপথ পাড়ি দিতে গিয়ে ইতোমধ্যে বাংলাদেশিসহ অনেক মানুষের মূত্যুর খবর পাওয়া গেছে।

ইতালির নতুন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মাত্তেও সালভিনি সম্প্রতি সিরিয়ার উপ প্রধানমন্ত্রী আহমেদ মেইটিংয়ের সাথে অবৈধ অভিবাসী প্রবেশ ঠেকাতে বৈঠক করেছেন। পরে দুই নেতা এক যৌথ সংবাদ সম্মেলনে এই সমস্যা সমাধানে ঐকমত্য পোষণ করেন। তারা এই বিষয়ে ইউরোপীয় ইউনিয়নের অন্যান্য দেশের সঙ্গেও আলোচনার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

এদিকে মাত্তেও সালভিনি আগেই ঘোষণা করেছেন ইতালিতে অবৈধ সাড়ে ছয় লক্ষ অভিবাসীকে নিজ দেশে ফেরত পাঠাবেন। সেখানে প্রায় বিশ হাজার বাংলাদেশির ভাগ্যও জড়িত। এ নিয়ে চিন্তিত হয়ে পড়েছেন বাংলাদেশিরা।

ইতোমধ্যে ইতালির সিসিলিতে প্রবেশের চেষ্টা করা লিবিয়া থেকে আগত প্রায় দুই হাজার শরনার্থী বহনকারী জাহাজকে ফেরত পাঠিয়েছে। তার মধ্যে ৬৩০ জন অবৈধ অভিবাসীকে পরে স্পেন সরকার গ্রহণ করলেও বাকি জাহাজগুলো লিবিয়াতে ফিরে যেতে বাধ্য হয়েছে।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: