মঙ্গলবার, ২১ অগাস্ট ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৬ ভাদ্র ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
অনুমতি ছাড়া সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীকে গ্রেপ্তার নয়  » «   দেশের উন্নতির জন্য বিলাসীতা ত্যাগের ঘোষণা ইমরানের  » «   ঈদে ৮ দিন ২৪ ঘণ্টা সিএনজি ফিলিং স্টেশন খোলা  » «   আজ আরাফার দিন, কিছু আমল যা আপনিও করতে পারবেন  » «   সিলেটে স্বাভাবিকের চেয়ে বেশী তাপমাত্রা, সতর্ক থাকার পরামর্শ  » «   সুনামগঞ্জে বাস চাপায় কলেজ ছাত্রী নিহত,দুই শিশুসহ আহত ৪  » «   ইরানে অভ্যুত্থান ঘটানোর সকল মার্কিন চেষ্টা ব্যর্থ হবে: জারিফ  » «   নাইজেরিয়ায় বোমা হামলায় নিহত ১৯  » «   মেঘনা তেল ডিপোতে অগ্নিকাণ্ড, নিহত ২  » «   ভোটার হওয়ার সুযোগ পাচ্ছেন কুয়েত, সিঙ্গাপুর ও যুক্তরাজ্যের প্রবাসীরা  » «   ঘন্টায় ১৮০ কিমি বেগে টোকিওর দিকে ঘূর্ণিঝড় ‘শানশান’  » «   মক্কায় ভারী বৃষ্টিপাতে বন্যার আশঙ্কা  » «   ক্যারিয়ার গড়তে রাজনীতিতে আসিনি: ইমরান খান  » «   সীমান্তে ভারী অস্ত্র-সেনা বাড়াচ্ছে মিয়ানমার, সতর্ক বিজিবি  » «   সন্তান জন্ম দিতে সাইকেল চালিয়ে হাসপাতালে গেলেন মন্ত্রী  » «  

আশুলিয়ায় বাসে ডাকাতি, ছুরিকাঘাতে চালক খুন



নিউজ ডেস্ক::টাঙ্গাইল থেকে ঢাকাগামী যাত্রীবাহী বাস আশুলিয়ায় ডাকাতের কবলে পড়ে ছুরিকাঘাতে চালক খুন হয়েছে। এসময় ডাকাতের হামলায় বাসের হেলপার ও সুপারভাইজার গুরুতর জখম হন। তাদের উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। উদ্ধার করা হয়েছে যাত্রীবাহী বাসটি।

মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) ভোরে নবীনগর চন্দ্রা মহাসড়কের আশুলিয়ার শ্রীপুর এলাকায় বাসের ভিতর থেকে শাজাহান নামে চালকের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়। তবে বাসটি উদ্ধার করা হলেও ডাকাত সদস্যদের আটক করতে পারেনি পুলিশ।

নিহত শাহজাহান টাঙ্গাইল সদর জেলার চরজানা গ্রামের মৃত বিশা মিয়ার ছেলে। এছাড়া আহত গাড়ির হেলপার টাঙ্গাইল সদরের বিশ্বাস বেতকা গ্রামের মৃত মীর সানোয়ার হোসেনের ছেলে বাদশা মিয়া ও সুপারভাইজার শহিদুল খান টাঙ্গাইল জেলার নাগরপুর থানার পাছতা গ্রামের মৃত ইবাদাত খানের ছেলে।

আশুলিয়া থানার পুলিশ পরিদর্শক মো. ওবায়দুল ইসলাম (ইন্টিলিজেন্স এন্ড কমিউনিটি পুলিশি) বিষয়টি নিশ্চিত করে হেলাপার ও সুপারভাইজানের বরাত দিয়ে জানান, গত রাতে ঢাকা টাঙ্গাইল ধলেশ্বরী পরিবহনের একটি বাস যাত্রী নিয়ে টাঙ্গাইল থেকে ঢাকা যাচ্ছিল। এসময় টাঙ্গাইলের মির্জাপুর থেকে ১০/১২ ডাকাত সদস্য যাত্রীবেশে বাসে উঠে। ডাকাত সদস্যরা বাসটি নিয়ন্ত্রণে নেওয়ার চেষ্টা করে। কিন্তু চালক তাদেরকে বাসের চাবী দিতে অস্বীকৃতি জানায়।

এসময় চালক ও হেলপারকে বাসের পিছনের সিটে বেধে রাখে ও ছুরি দিয়ে আঘাত করে। পরবর্তীতে বাসটি নবীনগর চন্দ্রা মহাসড়কের আশুলিয়ার শ্রীপুর এলাকায় নিয়ে আসে ডাকাত সদস্যরা। পরে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে যাত্রীদের কাছ থেকে লুটপাট করে তারা পালিয়ে যায়। খবর পেয়ে বাসটি পুলিশ উদ্ধার করে। এসময় বাসে পিছনের সিট থেকে চালক শাহজাহান মিয়ার, সুপারভাইজার শহিদুল ও হেলপার বাদশা মিয়াকে উদ্ধার করে স্থানীয় গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসক শাহজাহান মিয়াকে মৃত ঘোষণা করে। এছাড়া আশঙ্কাজনক অবস্থায় বাসের হেলপারকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।

সুপারভাইজারকে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। তবে এঘটনায় ডাকাত সদস্যদের আটক করা সম্ভব হয়নি। তাদের আটকের জন্য অভিযান চলছে।

তিনি আরও জানান, কয়েকজন যাত্রী থাকলেও তারা ভয়ে যে যার মতো চলে গেছেন। তাদের বিষয়েও খোঁজ নেয়া হচ্ছে। লাশটি ময়না তদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মর্গে পাঠানোর প্রস্তুতি চলছে। এছাড়া আশুলিয়া থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: