শুক্রবার, ১৮ জানুয়ারী ২০১৯ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ মাঘ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
জিয়াউর রহমানের জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে কর্মসূচি ঘোষণা  » «   সীমান্তের খালে মিয়ানমারের সেতু, বন্যার আশঙ্কা বাংলাদেশে  » «   দ্বিতীয় কৃত্রিম উপগ্রহ পাঠাবে বাংলাদেশ: শাবিতে পরিকল্পনামন্ত্রী  » «   আতিয়া মহল মামলা: ৫ দিনের রিমান্ডে ৩ আসামি  » «   শেখ হাসিনা হত্যাচেষ্টা মামলা: হাইকোর্টে আপিল শুনানি শুরু  » «   টিআইবির রিপোর্টে সরকার ও ইসির আঁতে ঘা লেগেছে: বিএনপি  » «   মাফিয়াদের স্বর্গরাজ্যে দশ বাংলাদেশির অনন্য সাহসিকতার নজির  » «   ১৪ দলের শরিকদের বিরোধী দলে থাকাই ভালো: ওবায়দুল কাদের  » «   সন্ত্রাস-মাদক-জঙ্গিবাদের মতো দুর্নীতির বিরুদ্ধেও ‘জিরো টলারেন্স’ : প্রধানমন্ত্রী  » «   সংসদ সদস্যদের শপথের বৈধতা নিয়ে রিট খারিজ  » «   কৃত্রিম কিডনি তৈরি করলেন বাঙালি বিজ্ঞানী  » «   ব্রেক্সিট ইস্যু: অনাস্থা ভোটে টিকে গেলেন তেরেসা মে  » «   টিআইবির প্রতিবেদন গ্রহণযোগ্য নয়, পুরোপুরি প্রত্যাখ্যান করি: সিইসি  » «   জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ে অফিস করছেন শেখ হাসিনা  » «   সংসদ কার্যকর রাখতেই বিরোধী দলে জাপা : জিএম কাদের  » «  

আমার হৃদয় আজ আনন্দে ভরপুর, রওশন আমার পাশে



6নিউজ ডেস্ক : দীর্ঘদিন পর এক মঞ্চে পাশাপাশি বসেছেন জাতীয়পার্টির (জাপা) চেয়ারম্যান ও সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ এবং তার স্ত্রীর ও সংসদে বিরোধী দলীয় নেত্রী রওশন এরশাদ। এসময় নেতাকর্মীরা আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েন। আবেগ দেখা গেছে এরশাদ ও রওশনের মধ্যেই।

‘জাতীয় পার্টিতে দুর্যোগের ঘনঘটা ছিল, আজ তা কেটে গেছে। আমার হৃদয় আজ আনন্দে ভরপুর। কারণ রওশন আমার পাশে।’ এভাবেই নিজের আবেগকে সবার সামনে তুলে ধরলেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ।

শনিবার বিকেলে রাজধানীর কাকরাইলস্থ জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় কার্যালয় প্রাঙ্গণে মহান মে দিবস এ উপলক্ষে শ্রমিক সমাবেশ স্ত্রী রওশনকে কাছে পেয়ে এরশাদ তার এ আবেগের কথা জানান। জাতীয় শ্রমিক পার্টি এ সমাবেশের আয়োজন করে। এ সময় রওশন স্বামী এরশাদের পাশের চেয়ারেই বসা ছিলেন।

পার্টির সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান রওশন এরশাদকে স্বাগত জানিয়ে এরশাদ বলেন, ‘আমার হৃদয় আজ আনন্দে ভরপুর। তার উপস্থিতিতে আজকের দিনটি শুধু শ্রমিকদের জন্যই নয়, জাতীয় পার্টির জন্যও আনন্দের দিন। আমাদের মধ্যে কোনোবিভেদ নাই, আমরা ঐক্যবদ্ধ।

এ সময় এরশাদের বাপাশে বসা দলের সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান রওশন এরশাদ, তার বাপাশে বসা কো-চেয়ারম্যান জিএম কাদেরের হাত উঁচু করে এরশাদ বলেন, ‘জাতীয় পার্টি এখন ঐক্যবদ্ধ, একসঙ্গে থাকবে। আজ থেকে আমাদের নতুন যাত্রা শুরু। এই যাত্রা ক্ষমতায় যাওয়ার, গুমখুন বন্ধ হওয়ার।’

তিনি বলেন, ‘মানুষ পরিবর্তন চায়, তবে বিএনপিকে নয়, জাতীয় পার্টিকে চায়। জীবনের শেষপ্রান্তে এসেছি, তাই জাতীয় পার্টিকে ক্ষমতায় আনতে চাই। সবাই ঐক্যবদ্ধ থাকতে চাই।’

নিউজ ডেস্ক : দীর্ঘদিন পর এক মঞ্চে পাশাপাশি বসেছেন জাতীয়পার্টির (জাপা) চেয়ারম্যান ও সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ এবং তার স্ত্রীর ও সংসদে বিরোধী দলীয় নেত্রী রওশন এরশাদ। এসময় নেতাকর্মীরা আবেগাপ্লুত হয়ে পড়েন। আবেগ দেখা গেছে এরশাদ ও রওশনের মধ্যেই।

‘জাতীয় পার্টিতে দুর্যোগের ঘনঘটা ছিল, আজ তা কেটে গেছে। আমার হৃদয় আজ আনন্দে ভরপুর। কারণ রওশন আমার পাশে।’ এভাবেই নিজের আবেগকে সবার সামনে তুলে ধরলেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ।

শনিবার বিকেলে রাজধানীর কাকরাইলস্থ জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় কার্যালয় প্রাঙ্গণে মহান মে দিবস এ উপলক্ষে শ্রমিক সমাবেশ স্ত্রী রওশনকে কাছে পেয়ে এরশাদ তার এ আবেগের কথা জানান। জাতীয় শ্রমিক পার্টি এ সমাবেশের আয়োজন করে। এ সময় রওশন স্বামী এরশাদের পাশের চেয়ারেই বসা ছিলেন।

পার্টির সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান রওশন এরশাদকে স্বাগত জানিয়ে এরশাদ বলেন, ‘আমার হৃদয় আজ আনন্দে ভরপুর। তার উপস্থিতিতে আজকের দিনটি শুধু শ্রমিকদের জন্যই নয়, জাতীয় পার্টির জন্যও আনন্দের দিন। আমাদের মধ্যে কোনোবিভেদ নাই, আমরা ঐক্যবদ্ধ।

এ সময় এরশাদের বাপাশে বসা দলের সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান রওশন এরশাদ, তার বাপাশে বসা কো-চেয়ারম্যান জিএম কাদেরের হাত উঁচু করে এরশাদ বলেন, ‘জাতীয় পার্টি এখন ঐক্যবদ্ধ, একসঙ্গে থাকবে। আজ থেকে আমাদের নতুন যাত্রা শুরু। এই যাত্রা ক্ষমতায় যাওয়ার, গুমখুন বন্ধ হওয়ার।’

তিনি বলেন, ‘মানুষ পরিবর্তন চায়, তবে বিএনপিকে নয়, জাতীয় পার্টিকে চায়। জীবনের শেষপ্রান্তে এসেছি, তাই জাতীয় পার্টিকে ক্ষমতায় আনতে চাই। সবাই ঐক্যবদ্ধ থাকতে চাই।’

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: