মঙ্গলবার, ২০ ফেব্রুয়ারী ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ | ৮ ফাল্গুন ১৪২৪ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
রাতে দেশ ছাড়ছেন মাহমুদউল্লাহ-মুস্তাফিজ  » «   পারিবারিক অশান্তির মূলে পরকীয়া  » «   ‘এই সুমি সেই সুমি’  » «   সুপ্রিম কোর্টের দারস্থ প্রিয়া প্রকাশ  » «   খালেদার শহীদ মিনারে শ্রদ্ধার বিষয়ে যা বললেন আ’লীগ নেতারা  » «   পাবনায় সরকারি এডওয়ার্ড কলেজে বই পড়া ও আবৃত্তি প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত  » «   পাবনা জেলা বিড়ি শিল্প মালিক সমিতির কমিটি গঠন শাহাদত সভাপতি রাসেল সম্পাদক  » «   কানাডায় বাংলাদেশি তরুণীর কৃতিত্ব  » «   মাথা না ধুলে ফরজ গোসল হবে?  » «   হোটেলে রুম ফাঁকা নেই, ফিরিয়ে দেয়া হলো মোদিকে  » «   ‘বর্তমান অবস্থায় খালেদা জিয়া নির্বাচন করতে পারবেন না’  » «   হবিগঞ্জে বিএনপির বিক্ষোভ মিছিলে পুলিশের গুলি,আহত ৩০  » «   পোশাক নিয়ে আলোচনায় সোহানা সাবা  » «   ভাষা শহীদদের শ্রদ্ধা জানাতে প্রস্তুত শহীদ মিনার  » «   চুনারুঘাটে অগ্নিকান্ডে ২টি দোকান পুড়ে ছাই  » «  

আজও ভিড় কমেনি কুয়েত দূতাবাসে



প্রবাস ডেস্ক:: কুয়েতে বিভিন্ন দেশের অবৈধ অভিবাসীদের ছয় বছর পর সাধারণ ক্ষমার ২৫ দিনের মধ্যে শুক্রবার ছিল ১২তম দিন। আজও ভিড় কমেনি দূতাবাসে। কুয়েত সিটির বিভিন্ন স্থান থেকে অবৈধ প্রবাসীরা সেবা নিতে ছুটে আসছে দূতাবাসে।

এছাড়া কুয়েত শহর থেকে প্রায় ৪ কি.মি. দূরে সীমান্তবর্তী এলাকা ওফরা ও তার পার্শ্ববর্তী এলাকা সমূহের বসবাসরত বাংলাদেশিদের সেবায় বাংলাদেশ দূতাবাসের একটি কন্স্যুলার টিম কাজ করে যাচ্ছে।

৯ ফেব্রুয়ারি সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত আতিকের মাজরা (জামিয়ার পার্শ্বে, গানাম হাসপাতাল সংলগ্ন ট্রাভেল পারমিট সেবা প্রদান করা হচ্ছে। যারা বৈধ হতে নতুন পাসপোর্টের জন্য আবেদন করেছেন তাদেরকে ৭ দিনের মধ্যে নতুন পাসপোর্ট দেয়া হবে বলেও জানান দূতাবাস কর্তৃপক্ষ।
উল্লেখ্য, ২৯ জানুয়ারি থেকে ২২ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত ঘোষিত সাধারণ ক্ষমার ১২ দিনের মধ্যে ট্রাভেল পারমিট নিয়ে দেশে যেতে প্রায় সাড়ে ৩ হাজার আর নতুন পাসপোর্ট ও বৈধ হতে আবেদন করেছে প্রায় সাড়ে ৩শ অবৈধ অভিবাসী বাংলাদেশি।

এদের মধ্যে বয়স্ক ও তরুণদের সংখ্যায় বেশি। প্রবাসীদের স্বার্থে কুয়েত দূতাবাসের কর্মকর্তারা সব সময় প্রস্তুত আছেন বলেও জানান বাংলাদেশ দূতাবাসের কাউন্সিলর ও দূতালয় প্রধান আনিসুজ্জামান।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: