শুক্রবার, ৩ এপ্রিল ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ২০ চৈত্র ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
Sex Cams
সর্বশেষ সংবাদ
ফ্রান্সে টানা চতুর্থদিন মৃত্যুর রেকর্ড, ৪ হাজার ছাড়াল প্রাণহানি  » «   সিঙ্গাপুরে আরও ১০ বাংলাদেশি করোনায় আক্রান্ত  » «   মিশিগানের হাসপাতালে আর রোগী রাখার জায়গা নেই  » «   ৩ হাসপাতাল ঘুরে চিকিৎসা না পেয়ে স্কুলছাত্রের মৃত্যু  » «   যুক্তরাজ্যে ১ দিনে ৫৬২ জনের মৃত্যু  » «   ক্লিনিকে ডাক্তার নেই, ফিরে যাচ্ছেন রোগীরা  » «   ৩ হাজার হাজতিকে মুক্তি দিচ্ছে সরকার  » «   সংকটে বাংলাদেশের পাশে থাকার ঘোষণা বিদেশি ক্রেতাদের  » «   সিলেটে ডাক্তারদের প্রাইভেট চেম্বার বন্ধ, ফার্মেসিতেই চিকিৎসা  » «   ৯ এপ্রিল পবিত্র শবে বরাত  » «   এবার স্পেনও ছাড়ালো চীনকে, ২৪ ঘণ্টায় ৭৩৮ মৃত্যু  » «   সিলেট বিভাগে বৃহস্পতিবার থেকে গণপরিবহন বন্ধ  » «   করোনা মোকাবিলায় দেশে দেশে লকডাউন  » «   খালেদা জিয়ার মুক্তি, করোনা বদলে দিচ্ছে রাজনীতি  » «   খালেদার মুক্তির সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানাল যুক্তরাষ্ট্র  » «  

আগামীকাল মৌলভীবাজার আসছেন এরশাদ



JP-logoমৌলভীবাজার প্রতিনিধি: আগামীকাল ১৬নভেম্বর রবিবার মৌলভীবাজারে আসছেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ। দলের চেয়ারম্যানের আগমনকে কেন্দ্র করে নেতাকর্মীরা এখন চাঙ্গা হয়ে উঠেছেন। বিলবোর্ড, ব্যানার, পোস্টার, ফেস্টুন, লিফলেট বিতরণ আর টানানোতে ব্যস্ত নেতাকর্মীরা। জেলা ও উপজেলা শহরে হয়েছে মিছিল মিটিং আর গণসংযোগ। এদিন জেলা জাতীয় পার্টির কাউন্সিল ও সমাবেশ হবে।
দলীয় সূত্রে জানায়, নানা কারণে ঝিমিয়ে পড়েছে জেলা জাতীয় পার্টির সাংগঠনিক কার্যক্রম। সংসদের প্রধান বিরোধী দলে থাকার পরও নানাভাবে তাদের চাওয়া পাওয়ার ফারাক থাকায় এর প্রভাব পড়ে দলীয় কাজে। ফলে নেতাকর্মীরা অনেকটা হতাশ হয়ে ছিলেন। বিগত নির্বাচনের আগে মৌলভীবাজার জেলা সভাপতি ও তখনকার সিলেট বিভাগের একমাত্র জাতীয় পার্টির এমপি নওয়াব আলী আব্বাস খানও দল ছেড়ে যোগ দেন নতুন জাতীয় পার্টিতে (কাজী জাফর)। এ কারণে তার সমর্থক ও অনুসারীরাও সাবেক দল ছেড়ে যোগ দেন নতুন দলে। অনেকই আবার ছিলেন নীরব। তাছাড়া দীর্ঘদিন থেকে জেলা ও উপজেলা কমিটি না হওয়ায় অনেকটাই ঝিমিয়ে পড়েছিল দলের সাংগঠনিক কাজ। দলের কর্মীদের নিষ্ক্রিয়তা ও সাংগঠনিক কার্যক্রমে স্থবিরতার সময়ে পার্টি চেয়ারম্যানের আগমনে বেশ নড়েচড়ে উঠেছেন জেলার কর্মীরা। ইতিমধ্যে সাত সাংগঠনিক উপজেলার মধ্যে ৬টির নতুন কমিটি করা হয়েছে। গতকাল জেলা জাতীয় পার্টির আহ্বায়ক সৈয়দ সাহাবুদ্দিন আহমদ জানান, তাদের সব প্রস্তুুতি প্রায় চূড়ান্ত। দলের চেয়ারম্যানের আগমনকে কেন্দ্র করে নেতাকর্মীরা উজ্জীবিত। চেয়ারম্যানের আগমন, সমাবেশ ও কাউন্সিল সফল করতে জেলা, উপজেলা ও পৌর কমিটির নেতৃবৃন্দ নিজ নিজ এলাকায় মতবিনিময় সভা করছেন। প্রচার প্রচারণার পাশাপাশি করেছেন মিছিল মিটিং।
চিঠির মাধ্যমে সর্বস্তরের জনসাধারণ এবং অন্যান্য রাজনৈতিক দলগুলোর নেতৃবৃন্দকে দেয়া হচ্ছে অনুষ্ঠানের দাওয়াত। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলেই রবিবার মৌলভীবাজার কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার মাঠে এই সমাবেশ হওয়ার কথা রয়েছে। জেলা যুব সংহতির আহবায়ক মুহিবুল কাদের চৌধুরী পিন্টু ও জেলা যুব সংহতির সদস্য সচিব ও কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাংগঠনিক সম্পাদক নাসির আহমদ কাইয়ুম জানান, দলের চেয়ারম্যানকে বরণ করতে তাদের প্রস্তুতি এগিয়ে চলছে। বিভিন্ন সড়কে নির্মাণ করা হয়েছে তোরণ। শ্রীমঙ্গলের লছনা এলাকা থেকে মৌলভীবাজার পর্যন্ত নির্মান করা হয়েছে অর্ধশতাধিক তোরণ। কয়েকশ’ মোটরসাইকেল ও গাড়ির বহরের শোভাযাত্রার মাধ্যমে দলের চেয়ারম্যান স্যারকে অভ্যর্থনা জানাতে প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: