মঙ্গলবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৭ খ্রীষ্টাব্দ | ৪ আশ্বিন ১৪২৪ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদ
পর্নোগ্রাফির মামলা নিয়ে ভাবছেন না কুসুম শিকদার  » «   ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত আশরাফুল  » «   ভুয়া মুক্তিযোদ্ধা সন্তান পরিচয় দিয়ে পুলিশ কনস্টেবল পদে চাকুরী  » «   মানববন্ধনে রিজভীচাল নেই: সরকারি গোডাউনে ইঁদুর খেলা করছে  » «   নতুন বিয়ে নিয়ে মুখ খুললেন ময়ূরী  » «   ‘যৌন নিপীড়ন বন্ধে বাংলাদেশ জিরো টলারেন্স নীতি নিয়েছে’  » «   মৌলভীবাজারে অং সান সুচির কুশপুত্তলিকা দাহ  » «   ইংলিশ মিডিয়ামে পড়ুয়াদের অভিভাবকের নাম অন্তর্ভুক্তি চেয়ে রিট  » «   পদ্মায় নিখোঁজ কনস্টেবলের মরদেহ ২৪ ঘন্টায় উদ্ধার হয়নি  » «   রাজধানীর পানিতে ঝুঁকিপূর্ণ জীবন  » «   উপজেলা পর্যায়ে চালু হচ্ছে ওএমএস  » «   ‘মধ্যরাতে আমাকে ঘিরে ধরে মাতালেরা, এরপর শুরু করে…’  » «   ভদ্র চালকদের জন্য পুরস্কার  » «   শাহজালালে সিগারেটসহ ৬ ভারতীয় নাগরিক আটক  » «   ৮ সন্তানকে আনতে পেরেছি আরেকজন জেলে  » «  

অপমানে তরুণীর আত্মহত্যা



এম শাহীন গোলদার, সাতক্ষীরা থেকে: মিথ্যা অনৈতিক সম্পর্ক নিয়ে সামাজিক অপমান সহ্য করতে না পেরে আত্মহননের পথ বেছে নিয়েছে সাতক্ষীরার স্কুল ছাত্রী রিমা খাতুন। এর আগে সালিশ করে তার বিচার করা হবে বলে হুমকিও দিয়েছিল গ্রামের মোড়লরা। তার আগেই বাড়ির পাশে একটি আম গাছের ডালে ওড়না পেচিয়ে গলায় ফাঁস দিয়েছে নবম শ্রেণির ছাত্রী রিমা।

রিমা সাতক্ষীরা সদর উপজেলার বল্লী গ্রামের কাঠ মিস্ত্রি জাকির হোসেনের মেয়ে। সে একই গ্রামের মুজিবর রহমান উচ্চ বিদ্যালয়ে নবম শ্রেনিতে পড়তো। রিমার মা ফজিলা খাতুন জানান, এক মাস আগে বাড়িতে কেউ না থাকার সুযোগে পাশের বাড়ির মহব্বত আলি রিমার ঘরে ঢোকে। রিমা তাকে অপমান করে তাড়িয়ে দেয়। এ ঘটনা মহব্বতের বাড়িতে জানানো হলে মহব্বত ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে। সে রিমার ক্ষতি করার জন্য রাস্তাঘাটে উত্ত্যক্ত করতে থাকে। এমনকি প্রতিশোধ নিতে ব্যস্ত হয়ে পড়ে।

ফজিলা খাতুন আরো জানান, শুক্রবার রাতে রিমার প্রাইভেট শিক্ষক রেজাউল ইসলামকে বাড়িতে দাওয়াত করা হয়। রাতে রেজাউল ইসলাম এসে ঘরে খাওয়া দাওয়া করতে থাকেন। তিনি বলেন এ সময় সবার অজান্তে মহব্বত আলি ওই ঘরের দরজার শিকল বাইরে থেকে লাগিয়ে গ্রামবাসীকে খবর দেয়। সে প্রচার দেয় রিমা ও রেজাউল অনৈতিক কাজে লিপ্ত হয়েছে। পাড়ার লোকজন এসে রিমা ও রেজাউলকে ঘর থেকে বের করে। তিনি জানান এ সময় সেখানে উপস্থিত হন বল্লী ইউপি চেয়ারম্যান বজলুর রহমানের ভাই বিল্লাল, হাফিজুল ইসলাম এবং অবসরপ্রাপ্ত সার্জেন্ট মিজানুর রহমানসহ অনেকেই। তারা সালিশ করে তাদেরকে শাস্তি দেওয়ার ঘোষণা দেন। এরই মধ্যে রেজাউল সেখান থেকে গা ঢাকা দেন। এদিকে ভোরে রিমাকে দেখা যায় বাড়ির পাশে একটি আম গাছের ডালে নিজের ওড়নায় ঝুলতে। শনিবার সকালে খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য সাতক্ষীরা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

সংবাদটি সম্পর্কে আপনার বস্তুনিষ্ট মতামত প্রকাশ করুন

টি মন্তব্য

সংবাদটি শেয়ার করুন

Developed by: